Main Menu

সরাইলে বিএনপি’র দু’গ্রুপে সংঘর্ষ, আহত- ৫, গ্রেপ্তার-১

+100%-


মোহাম্মদ মাসুদ: সরাইলে বিএনপি’র দু’গ্রুপের সংঘর্ষে পাঁচ জন আহত হয়েছে। ভাংচুর হয়েছে বাড়ি ঘর। গত সোমবার রাত সাড়ে আটটায় উপজেলার শাহবাজপুর ইউপি ছাত্রদলের কমিটি গঠনকে কেন্দ্র করে দু’গ্রুপের মধ্যে এ ঘটনা ঘটেছে। গুরুতর আহত সাবেক যুবদল নেতা আবু ছায়েদ টুনু (৪৫) কে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ ছাত্রদল নেতা আক্তার মিয়া (২৫) কে গ্রেপ্তার করেছে। প্রত্যক্ষদর্শী এলাকাবাসী জানায়, সোমবার রাতে স্থানীয় বিএনপি অফিসে বসে যুবদল নেতা আবু সুফিয়ান সহ কয়েক জন কথা বলছিলেন। এ সময় ইউপি ছাত্রদলের কমিটি নিয়ে আক্তার মিয়ার সাথে আবু সুফিয়ানের প্রথমে বাক বিতন্ডা ও পরে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার প্রতিবাদ করায় আক্তারের নেতৃত্বে কিছু লোক ইউপি ছাত্রদলের (বিতর্কিত কমিটি) সম্পাদক রুহুল আমীন (১৮) ও তার পিতা আবু ছায়েদ টুনু মিয়ার উপর হামলা চালায়। এতে তারা দু’জনই আহত হয়। তাদেরকে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। টুনু মিয়ার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য রাতেই তাকে ঢাকায় প্রেরন করা হয়েছে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ উপস্থিত হলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। আক্তারের পিতা গেদু মিয়া (৬৩) জানান, রুহুলের স্বজনরা রাতে ও গতকাল সকালে তার বসত বাড়িতে দু’দফায় হামলা চালিয়ে মারধর ও ভাংচুর করেছে। এতে আক্তার ও তার ছোট ভাই রোমান (২২) আহত হয়েছে। সোমবার রাতেই অভিযান চালিয়ে পুলিশ আক্তারকে গ্রেপ্তার করেছে। আহত ছাত্রদল নেতা রুহুল আমীন বলেন, এক বছর পূর্বে উপজেলা ছাত্রদল শাহবাজপুর ইউপি ছাত্রদলের আংশিক কমিটির অনুমোদন দেন। আক্তার ছিল সভাপতি পদপ্রার্থী। ওই কমিটি গঠনের পর থেকেই আক্তার আমাদের পেছনে লেগে আছে। সর্বশেষ গত সোমবার রাতে পরিকল্পিত ভাবে আমাদেরকে মারধর করেছে। অপরদিকে উপজেলা ছাত্রদলের সভাপতি সৈয়দ ইসমাঈল হোসেন উজ্জল বলেন, শাহবাজপুরে ছাত্রদলের কোন কমিটি এখনো গঠন হয়নি। আলোচনা চলছে মাত্র। তাদের পারিবারিক বিরোধকে কেন্দ্র করে সোমবার জগড়া হয়েছে। শাহবাজপুর গ্রামের বাসিন্ধা জেলা শ্রমিক দলের সহ-সভাপতি কাজী আবুল ফজল বলেন, ছাত্রদলের কমিটির বিষয়কে ধরেই আক্তার তার দলবল নিয়ে রুহুলদের উপর হামলা চালিয়েছে। রাজনৈতিক গ্রুপিং-এর কারনেই এমনটি হচ্ছে। সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উত্তম কুমার চক্রবর্তী বলেন, স্থানীয় বিএনপি’র অন্তর্দন্ধকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা ঘটেছে। মামলা পক্রিয়াধীন আছে। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত আছে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares