Main Menu

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের প্রচেষ্ঠায় আখাউড়ায় দুই ইউনিয়ন ভিক্ষুক মুক্ত

+100%-

আখাউড়া  প্রতিনিধি. জেলার ব্রাক্ষণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলার ধরখার ইউনিয়নকে ভিক্ষুক মুক্ত করার পর এবার উপজেলার মোগড়া ইউনিয়নকে ও ভিক্ষুক মুক্ত ঘোষণা করেছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ শামছুজ্জামানের প্রচেষ্টায় উপজেলার ৫ ইউনিয়নের মধ্যে দুইটি
ইউনিয়ন কে ভিক্ষুক মুক্ত ঘোষণা করেছেন। গত ৬ এপ্রিল রোববার ভিক্ষুকদের পুনর্বাসনের মাধ্যমে ভিক্ষুক মুক্ত উপজেলা ঘোষনার পথে আরো এক ধাপ এগিয়েছেন আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা । গত রোববার সকাল সাড়ে ১০ টায় মোগড়া ইউনিয়ন পরিষদে এলজিএসপি-৩ এবং স্থানীয় সহযোগিতায় মানব স¤পদ উন্নয়নে দুঃস্থদের প্রশিক্ষণ ও উপকরণ সরবরাহ করা হয়।
এতে প্রধান অতিথি ছিলেন আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ শামছুজ্জামান। সভাপতিত্ব করেন মোগড়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ মনির হোসেন। এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ইউএনও মোহাম্মদ শামছুজ্জামান বলেছেন, বাংলাদেশ এখন স্বল্পোন্নত দেশের স্ট্যাটাস হতে উন্নয়নশীল দেশ হয়েছে। আমাদের সকলকে কাজ করতে হবে এবং কাউকে ভিক্ষা করতে দেওয়া যাবে না।

আখাউড়া উপজেলাকে ভিক্ষুক মুক্ত করতে তিনি উপস্থিত সকলের সহযোগিতা কামনা করেন। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, একটি বাড়ি একটি খামারে উপজেলা সমন্বয়কারী মোসাম্মৎ নাছরিন আক্তার, আখাউড়া গ্রামীণ ব্যাংকের ব্যবস্থাপক মোঃ আবুল
বাশার ফারুক চকদার, আখাউড়া আশার সিনিয়র ব্রাঞ্চ ম্যানেজার জাহাঙ্গীর চৌধুরী, আওয়াল মিয়া
মেম্বার প্রমুখ। অনুষ্ঠান শেষে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, আখাউড়া মোগড়া ইউনিয়নের ৬জন
ভিক্ষুককে পুনর্বাসনের লক্ষ্যে তাদের হাতে বিভিন্ন উপকরণ তোলে দেন।

(১)জোবেদা বেগম, স্বামী সামছু মিয়া, গ্রাম মোগড়াকে একটি রিক্সা (২) আনোয়ারা বেগম, পিতা হাসান মিয়া, গ্রাম মোগড়াকে কাপড়ের ব্যবসা সামগ্রী (৩)হাসেনা বেগম স্বামী আবুল খায়ের, গ্রাম মোগড়াকে কাঠের ব্যবসার জন্য কাঠমিস্ত্রী যন্ত্রপাতি (৪)মোঃ কালা মিয়া (শারিরীক প্রতিবন্ধী), পিতা তিতু মিয়া, গ্রাম জাঙ্গালকে
মুদি দোকান সামগ্রী (৫)আব্দুল খালেক, পিতা আব্দুল খলিল, গ্রাম নয়াদিলকে মুদি দোকান সামগ্রী
(৬)মোঃ ইউসুফ মিয়া (দৃষ্টি প্রতিবন্ধী) পিতা আবু তাহের মিয়া, গ্রাম মোগড়াকে ফ্লেক্সি লোড ব্যবসা
পরিচালনার জন্য ফ্লেক্সিসহ মোবাইল প্রদান করেন। আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ
শামছুজ্জামান বলেছেন, আখাউড়া উপজেলাকে ভিক্ষুক মুক্ত করতে ইতিমধ্যে ধরখার ইউনিয়নকে
ভিক্ষুক মুক্ত করা হয়েছে ।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares