Main Menu

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তিতাস নদী ও এন্ডারসন খাল পুন:খনন কাজের উদ্বোধন

+100%-

প্রধানমন্ত্রী প্রতিশ্রুত ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার তিতাস নদী (আপার) পুন:খনন শীর্ষক প্রকল্প এর আওতাধীন তিতাস নদী ও এন্ডারসন খাল পুন: খননের কাজ শনিবার উদ্বোধন করা হয়েছে।

প্রধান অতিথি হিসেবে উদ্বোধন  করেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি ও জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি  বীর মুক্তিযোদ্ধা র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি।

এসময় প্রধান অতিথি বলেন, যদিও এটাকে তিতাস পুন:খনন বলা হচ্ছে, কিন্তু এটা আসলে পুন:খনন নয়। কারণ এর আগে কখনও তিতাস খনন হয়নি। স্বাধীনতার পরে বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর থেকে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন সাহেবরা ক্ষমতায় ছিলেন, তাদের কেউ তিতাসের দিকে নজর দেননি। তিতাসের দিকে নজর দিয়েছেন জননেত্রী শেখ হাসিনা। এ প্রকল্প একনেকে পাস করাতে আমাদের অনেক কাঠখড় পোড়াতে হয়েছে।  বিভিন্নসময় বিভিন্নজন এর গতিকে মন্থর করতে চেয়েছে। কিন্তু খোদা তালার রহমতে আমরা সফল হয়েছি। এ তিতাস ব্রাহ্মণবাড়িয়ার পরিচায়ক। অদ্বৈত মল্ল বর্মণের কালজয়ী উপন্যাস তিতাস একটি নদীর নামের কারণে তিতাস আজ বিশ্বব্যাপী পরিচিত। তার এই বই বিভিন্ন ভাষায় অনুদিত হয়েছে। সে কারণে বিশ্বের বিভিন্ন ভাষাভাষী মানুষ তিতাসকে চেনেন।

এমপি আরো বলেন, আমরা যে কাজ শুরু করেছি তা শেষ হলে এ জনপদের লোকজনের অনেক উপকার হবে। কৃষকরা শুষ্ক মৌসুমে পর্যাপ্ত সেচের পানি পাবে, সারা বছর নৌ-চলাচল করতে পারবে, দেশীয় বিভিন্ন মাছের উৎপাদন বৃদ্ধি পাবে। এক কথায় বলা যায়, এই এলাকার আর্থ সামাজিক অবস্থার ব্যাপক পরিবর্তন হবে।

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে পানি উন্নয়ন বোর্ডের কুমিল্লা পূর্বাঞ্চলীয় জোনের প্রধান প্রকৌশলী বাবুল চন্দ্র শীল,প্রকল্প পরিচালকও তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মোঃ জহিরুল ইসলাম, নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ শাহীনুজ্জামান,পৌর মেয়র নায়ার কবির, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আল মামুন সরকার,সহ জেলা অওয়ামীলীগ ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রকল্পের আওতায় ১১৯ কোটি টাকা ব্যয়ে ১০৩ কিলোমিটার নদী এলাকা পুনঃ খনন কাজ শেষ হলে পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা পাবে,নৌ চলাচল ও সেচ সুবিধা বৃদ্ধি পাবে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares