Main Menu

আজিজুল হক নিষ্ঠাবান ও দক্ষ ব্যবসায়ী নেতা হিসেবে ব্যবসায়ীদের নিকট ব্যাপক পরিচিত — জেলা প্রশাসক রেজওয়ানুর রহমান

+100%-

দি ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার্স অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি’র ২০১৭- ২০১৯ মেয়াদের জন্য পরিচালক পদে নির্বাচিত হওয়ায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি’র সভাপতি আলহাজ্ব আজিজুল হককে গতকাল সোমবার বিকাল ৪টায় শহরের জেল রোডস্থ সুরসম্রাট দি আলাউদ্দিন সঙ্গীতাঙ্গনে এক সংবর্ধনা প্রদান করেছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সর্বস্তরের ব্যবসায়ী সমাজ। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলা প্রশাসক রেজওয়ানুর রহমান। বিশেষ অতিথি ছিলেন পুলিশ সুপার মোঃ মিজানুর রহমান পিপিএম (বার), ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার মেয়র নায়ার কবির, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা নাগরিক কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব ডাঃ মোহাম্মদ বজলুর রহমান, সড়ক বাজার ব্যবসায়ী কমিটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নান ভূইয়া প্রমুখ।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি’র উর্ধ্বতন সহ সভাপতি সুভাষ চন্দ্র পালের সভাপতিত্বে ও দৈনিক সমতট বার্তার সম্পাদক ও চ্যানেল আই জেলা প্রতিনিধি মনজুরুল আলমের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন চেম্বার সহ সভাপতি আলহাজ্ব মোঃ শাহ আলম।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অর্ধ শতাধিক ব্যবসায়ী কমিটির নেতৃবৃন্দ স্ব স্ব কমিটির পক্ষে আলহাজ্ব আজিজুল হককে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক রেজওয়ানুর রহমান বলেন, আলহাজ্ব আজিজুল হক একজন দক্ষ ব্যবসায়ী নেতা হিসেবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সর্বস্তরের ব্যবসায়ীদের নিকট তার ব্যাপক পরিচিতি রয়েছে। তাঁর সুযোগ্য নেতৃত্ব প্রসার ঘটানোর লক্ষ্যেই তিনি আজ এফবিসিসিআই’র পরিচালক হতে পেরেছেন। আমি মনে করি, তাঁকে তারা সঠিক মূল্যায়ন করেছে। কারণ ব্রাহ্মণবাড়িয়া হল একটি ব্যবসা বান্ধব জেলা। এই জেলার উপর দিয়ে আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের স্থলবন্দর রয়েছে। তারা অচিরেই রেলপথ স্থাপন করতে যাচ্ছেন। এই বন্দর দিয়ে আমাদের দেশের বিভিন্ন পন্য ভারতে নেওয়া হয়। তাই এই জেলার গুরুত্ব অনেক বেশি। তিনি এ সময় আলহাজ্ব আজিজুল হকের সু-স্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করেন।
সংবর্ধনার জবাবে আলহাজ্ব আজিজুল হক বলেন, সর্বস্তরের ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ব্যবসায়ী ও সকল শ্রেণী পেশা মানুষের সহযোগিতা ও ভালোবাসায় আমি আজ এফবিসিসিআই’র পরিচালক পদে নির্বাচিত হতে পেরেছি। তাই আমি সকলের নিকট কৃতজ্ঞতা জানাই। ব্রাহ্মণবাড়িয়া চেম্বারের প্রতিষ্ঠা লগ্ন থেকে এর সাথে সম্পৃক্ত ছিলাম। চেম্বারের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মরহুম ফরিদ উদ্দিন আহমেদের সাথে চেম্বারের কার্যক্রম পরিচালনা করেছি। তার মৃত্যুর পর আপনারা আমাকে চেম্বারের সভাপতি বানিয়েছেন। আমি আপনাদের দোয়া ও ভালোবাসা নিয়ে বর্তমানে এফবিসিসিআই’র পরিচালক হয়েছি। আমি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ব্যবসায়ীদের কল্যাণে নিরলসভাবে কাজ করে যেতে চাই। আমি আপনাদের সেবায় সার্বক্ষণিক নিবেদিত থাকবো। আমাকে আপনারা দোয়া করবেন। আমি আপনাদের ভালোবাসার কাছে ঋণি হয়ে রইলাম।

পরে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares