Main Menu

সাধ্য অনুযায়ী দায়িত্ব পালন করব : মোকতাদির চৌধুরী

+100%-

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ (সদর-বিজয়নগর) আসন থেকে চারবার নির্বাচিত সংসদ সদস্য গৃহায়ণমন্ত্রী মোকতাদির চৌধুরী নিজ গ্রাম সদর উপজেলার চিনাইরে সাংবাদিকদের বলেছেন, আমি যে মন্ত্রিসভায় এসেছি এ জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে কৃতজ্ঞতা জানাই। আমার সাধ্য অনুযায়ী একজন মানুষ হিসেবে আমার ওপর এই বয়সেও যে গুরুদায়িত্ব এসেছে, সেটা পালনে সচেষ্ট থাকব।

মন্ত্রী হওয়ার পর আজ শুক্রবার প্রথমবারের মতো নিজ সংসদীয় এলাকা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এসে বাবা-মায়ের কবর জিয়ারত করেছেন এবং গ্রামের বিভিন্ন পথ ঘুরে দেখলেন গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা র. আ. ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী। এ সময় সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি আবাদি কৃষিজমি রক্ষা ও পরিকল্পিত গ্রাম নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর পরিকল্পনার কথা তুলে ধরেন।

উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী বলেন, ‘পরিকল্পিত নগরায়ণের কথা প্রধানমন্ত্রী আমাকে বলেছেন। গ্রামগুলোতে যে অপরিকল্পিত ঘরবাড়ি হচ্ছে, সেখানেও যাতে পরিকল্পিত গ্রাম গড়ে তোলা যায় সেটা দেখতে হবে। গ্রামের যে আবাদি জমি আছে, সেগুলো যাতে নষ্ট না হয়।’

তিনি আরো বলেন, ‘আবাদি জমি নষ্টই হয়ে যাচ্ছে। প্রচুর জমি নষ্ট হয়ে যাচ্ছে, প্রতিবছরই হচ্ছে। এটা থেকে কিভাবে গ্রামগুলোকে রক্ষা করা যায় দেখতে হবে। গ্রামে পরিবেশবান্ধব ঘরবাড়ি যাতে হয়, সেটা খেয়াল রাখতে হবে। আমি সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাব।

জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মো. মাহবুবুল বারী চৌধুরী মন্টু, সহসভাপতি মো. হেলাল উদ্দিন, আওয়ামী লীগ নেতা মো. মাহবুব আলম খোকন, তানজিল আহমেদ, জেলা পরিষদ সদস্য মো. বাবুল মিয়া, মো. সাইফুল ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মো. রবিউল হোসেন রুবেল, মো. শাহাদাৎ হোসেন শোভন, সদর উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক জসীম উদ্দিন রানাসহ এলাকার লোকজন এ সময় মন্ত্রীর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন। এ সময় মন্ত্রী তাঁর দায়িত্ব পালনে গণমাধ্যমকর্মীসহ সবার সহযোগিতা কামনা করেন। নির্বাচনে তাঁর জন্য কাজ করায় দলীয় নেতাকর্মীসহ সবার প্রতি তিনি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।