Main Menu

বাঞ্ছারামপুর মাহবুবুর রহমান মেমোরিয়াল হাসপাতাল মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

+100%-

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুর উপজেলার প্রত্যন্ত রূপসদী গ্রামে প্রতিষ্ঠিত মাহবুবুর রহমান মেমোরিয়াল হাসপাতালের বিরুদ্ধে দুটি জাতীয় দৈনিকে বানোয়াট সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার দুপুরে হাসপাতালের কনফারেন্স রুমে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন হাসপাতালের চেয়ারম্যান, সাবেক উপসচিব মো. মজিবুর রহমান। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আতিকুর রহমান,পরিচালক প্রকৌশলী সফিকুর রহমান, আমানত শাহ গ্রুপের পরিচালক মিয়া মো. ফরিদসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

লিখিত বক্তব্যে মো. মজিবুর রহমান জানান, তার বাবার স্মরণার্থে গত ২০০৬ সালে অলাভজনক এই হাসপাতালটি প্রতিষ্ঠা করা হয়। এই হাসপাতালে বাঞ্ছারামপুর উপজেলার ১৩টি ইউনিয়নের বাসিন্দাসহ পাশের নবীনগর ও হোমনা উপজেলার মানুষ চিকিৎসা সেবা নিয়ে থাকেন। প্রত্যন্ত এই অঞ্চলের মানুষেরা যাতে স্বল্পমূল্যে সেবা নিতে পারে সে লক্ষ্যেই আধুনিক যন্ত্রপাতি ও বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক দিয়ে সেবা দেওয়া হচ্ছে। গত ২৮ অক্টোবর হাসপাতালের বিরুদ্ধে দুটি জাতীয় পত্রিকায় একেবারেই বানোয়াট সংবাদ প্রকাশ করা হয়।

তিনি জানান, তাদের হাসপাতালটি সামাজিক দায়বদ্ধতা পদক (সিএসআর) প্রাপ্ত। হাসপাতালটির সুনাম নষ্ট করতে স্থানীয় একটি অসাধু মহল অপপ্রচারে নেমেছে। প্রকৃত ঘটনার সাথে প্রকাশিত ঘটনার কোন মিল নেই বলে দাবি করে তিনি বলেন, হাসপাতালের নামে বিজ্ঞাপন না দেয়ায় প্রকাশিত দুটি পত্রিকার স্থানীয় প্রতিনিধিরা ঈর্ষান্বিত হয়ে বানোয়াট সংবাদটি প্রকাশ করেন।

সংবাদে উল্লেখ করা জনৈক রোগী মাজেদা বেগমের পেটে গজ ব্যান্ডেজ রেখে সেলাইয়ের অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা দাবি করে তিনি বলেন, প্রকাশিত সংবাদে রোগী ভর্তির যে তারিখ (১৮ সেপ্টেম্বর) উল্লেখ করা হয়, প্রকৃতপক্ষে এই তারিখে এই নামে কোন রোগী তাদের হাসপাতালে ভর্তি হয় নাই। হাসপাতালের ভর্তি রেজিষ্ট্রার ও অপারেশন নোট বুকেও এই নামের কোন অস্তিত্ব নেই।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares