Main Menu

রাশিয়ায় উল্কাপাতে আহত চারশতাধিক

+100%-

ডেস্ক টোয়েন্টি ফোর : রাশিয়ার মধ্যাঞ্চলীয় উরাল এলাকায় শুক্রবার সকালে প্রচণ্ড বিস্ফোরণের পর আকাশ থেকে জলন্ত বস্তু এসে পড়েছে। প্রচণ্ড বিস্ফোরণের ধাক্কায় জানালার কাঁচ ভেঙে অন্তত ৪শ’র বেশি মানুষ আহত হয়েছে বলে জানিয়েছে রিয়া-নভোস্তি সংবাদ সংস্থা

মস্কো থেকে ১৫শ’ কিলোমিটার পুবের শিল্প শহর চেলিয়াবিনস্কে আকাশে উজ্জ্বল আলো ছড়িয়ে উল্কাপিণ্ডটি কাছাকাছি কোথাও মাটিতে এসে আঘাত হানে।

জলন্ত বস্তুপিণ্ডগুলোকে উল্কা বলে ধারণা করা হচ্ছে| রাশিয়ার জরুরি উদ্ধার ও ত্রাণ বিভাগের এক কর্মকর্তা একথা জানিয়েছেন।

দিগন্ত পার হয়ে শহরটির দিকে যাওয়ার সময় উল্কাটি সাদা ধোঁয়ার একটি দীর্ঘ রেখা রেখে যায়, যা ২শ’ কিলোমিটার দূরের ইয়েকেটেরিনবার্গ শহর থেকেও দেখা গেছে বলে জানিয়েছেন প্রত্যাক্ষদর্শীরা।

ইয়েকেটেরিনবার্গের এক অধিবাসী বলেন, “আমি গাড়ি চালিয়ে কাজে যাচ্ছিলাম। তখন ছিল অন্ধকার।কিন্তু হঠাৎ করে চারিদিক দিনের মতো আলোকিত হয়ে উঠল। হেডলাইটের আলোয় আমি অন্ধ হয়ে গেছি বলে মনে হল।”

রাশিয়ার জরুরি উদ্ধার বিভাগের এক কর্মকর্তা জানান, “নিশ্চিতভাবে এটি কোনো বিমান ছিল না। আমরা এ ব্যাপারে তথ্য সংগ্রহ করছি।”

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, তারা উরাল অঞ্চলের চেলিয়াবিনস্ক ও সেভারদবস্ক এলাকার আকাশে জলন্ত বস্তু দেখেছেন।

রাশিয়ার এ তিনটি অঞ্চলে শুক্রবার উল্কাপাতে আহত হয়ে চিকিৎসার শরণাপন্ন হওয়া মানুষের সংখ্যা ৪শ’ ছাড়িয়ে গেছে বলে জানিয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তিন অঞ্চলের কমপক্ষে ছয়টি শহর উল্কাপাতের শিকার হয়েছে।

রয়টার্সের এক প্রতিবেদক জানিয়েছেন, ভোরে তিনি প্রচণ্ড শব্দ শুনেছেন এবং এর প্রভাবে তার ১৯ তলা ভবনটি কেঁপে উঠেছে।

তিনি গাড়ির হর্ণের শব্দ ও জানালা ভেঙে পড়ার শব্দ পেয়েছেন বলেও জানিয়েছেন।

জরুরি বিভাগের আরেক কর্মকর্তা আরআইএ- নভোস্তিকে বলেছেন, “প্রাথমিক তথ্যানুযায়ী, এটিকে উল্কাপাত বলেই ধারণা করা হচ্ছে। ভূমি থেকে ১০ কিলোমিটার উচ্চতায় একটি বিস্ফোরণ ঘটেছে বলে আমরা প্রমাণ পেয়েছি।”

উল্কার আঘাতে মাটি কেঁপে ওঠার কথা জানিয়েছে চেলিয়াবিনস্ক এলাকার মানুষ। (সৌজন্যে বিডি নিউজ)