Main Menu

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১০ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল

+100%-

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ৬ আসনের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষে ৫৫ প্রার্থীর মধ্যে ১০ জনের মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে। রোববার (৩ ডিসেম্বর) জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. শাহগীর আলম এ ঘোষণা দেন।

জানা গেছে, রোববার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. শাহগীর আলমের সভাপতিত্বে এ বাছাই কার্যক্রম চলে। এতে বিভিন্ন দলের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ও তাদের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। যাচাই-বাছাইয়ে আওয়ামী লীগ মনোনীত সব প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়। তবে বাতিল হয়েছে ৫৫ প্রার্থীর মধ্যে ১০ জনের মনোনয়ন। এছাড়া বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার সাবেক উপদেষ্টা সৈয়দ এ কে একরামুজ্জামানের মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।

যাদের মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে তারা হলেন-

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী এ টি এম মনিরুজ্জামান সরকার ও রোমা আক্তার, ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী মোহাম্মদ বকুল হুসেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ (সরাইল-আশুগঞ্জ) আসনে দাখিল করা সব মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ (সদর-বিজয়নগর) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ফিরোজুর রহমান, মো. জহিরুল হক চৌধুরী, স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. কাজী জাহাঙ্গীর।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪ (কসবা-আখাউড়া) আসনে বাংলাদেশ কংগ্রেস মনোনীত প্রার্থী বজলুর রহমান মিলন,

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ (নবীনগর) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মোস্তাক এবং আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী স্বতন্ত্র প্রার্থী নজরুল ইসলাম ভূঁইয়া।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬ (বাঞ্ছারামপুর) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী সফিকুল ইসলাম।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ফিরোজুর রহমান বলেন, বাছাইয়ের সময় আমাকে জানানো হয়েছে একজন ভোটার স্বাক্ষরের কথা অস্বীকার করছেন। তবে আমাকে কথা বলার কোনো সুযোগ দেওয়া হয়নি।

জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. শাহগীর আলম বলেন, যাদের মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে তারা নির্বাচন কমিশনে ৫ থেকে ৯ ডিসেম্বর মধ্যে আপিল করতে পারবেন।