Main Menu

সংবাদ সম্মেলনে ফখরুল- আল-কায়েদার বার্তায় বিএনপির যোগসূত্র নেই

+100%-

সরকার আল-কায়েদার কথা বলে যুক্তরাষ্ট্রকে কাছে টানার কৌশল অবলম্বন করছে বলে অভিযোগ করেছে বিএনপি। দলটির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ অভিযোগ করেন। আজ সোমবার দুপুরে নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপি আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে ফখরুল এ মন্তব্য করেন। এ সময় দলটির যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী আহমেদও উপস্থিত ছিলেন।
মির্জা ফখরুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, অবাধ তথ্যপ্রযুক্তির যুগে সরকার কিছু মিডিয়াকে অসত্য প্রচারে বাধ্য করছে। বিএনপি সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদকে প্রশ্রয় দেয় না এবং কখনোই দেবে না। আল-কায়েদার কথিত অডিওবার্তার সঙ্গে বিএনপির কোনো যোগসূত্র নেই। সরকারের মন্ত্রীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, কাউকে খুশি করার জন্য কোনো বক্তব্য দেওয়ার আগে ভাবতে হবে তার কথার যৌক্তিকতা কতটুকু।
বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব বলেন, বিএনপি দেশে চলমান হত্যা, গুমের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করে আসছে। বিএনপির নেতা-কর্মী ও আলেম-ওলামাদের গুম ও নির্যাতনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়েছে। এসবের বিরোধিতা করলে যদি আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক থাকে তাহলে অনেক দলই এর অন্তর্ভুক্ত হবে বলেও মন্তব্য করেন ফখরুল। তিনি বলেন, আমেরিকাসহ বিভিন্ন গণতান্ত্রিক দেশ ও মানবাধিকার সংগঠনগুলো অন্যায় ও মানবাধিকার পরিপন্থী কাজের প্রতিবাদ করছে। সঙ্গত কারণেই সবাই বাংলাদেশকে একটি বৃহৎ কারাগার বলছে।
প্রসঙ্গত, গত শনিবার আল-কায়েদা প্রধান আয়মান আল-জাওয়াহিরির কথিত এক অডিও-ভিডিওবার্তায় বাংলাদেশকে বৃহৎ কারাগার উল্লেখ করে এ দেশে জিহাদের ডাক দেওয়া হয়। এর পর থেকে আওয়ামী লীগ নেতারা এই অডিওবার্তার সঙ্গে বিএনপি, জামায়াত ও হেফাজতের যোগসূত্রতা খোঁজেন। রবিবার সংসদেও এ ব্যাপারে তুমুল আলোচনা হয়। জামায়াত-হেফাজতের পক্ষ থেকে আল-কায়েদার সঙ্গে কোনো সম্পর্ক নেই বলে আগেই জানানো হয়েছে। এ ব্যাপারে বিএনপির পক্ষ থেকে আজ আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানানো হয়।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares