Main Menu

৭১’র মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়নে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান

+100%-


৩ মার্চ শনিবার শরীফপুর ও তারুয়া ইউনিয়নে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের পৃথক পৃথক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। শরীফপুর ইউনিয়নের সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন ইউনিয়ন কমান্ডার ডাঃ ফায়েজ আহম্মেদ ফুল মিয়া। তারুয়া ইউনিয়নের সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন ইউনিয়ন কমান্ডার রশিদ মিয়া। কোরআন তেলওয়াত করেন মাওঃ জাফর উল্লাহ্। সম্মেলনদ্বয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব হারুন অর রশিদ। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সাবেক সাংগঠনিক কমান্ডার ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান হাজী তাজুল ইসলাম।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন আশুগঞ্জ উপজেলা কমান্ডোর সাবেক কমান্ডার মোঃ ইকবাল হোসাইন, হাবিবুর রহমান, সফিকুল ইসলাম, আবু সামা, তাজুল ইসলাম, আবুল হাসেম, তাজুল ইসলাম, এ কে এম সাদি, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ জেলা সন্তান কমান্ডের সদস্য সচিব ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর মোঃ আহসানউল্লাহ্ হাসান, জেলা প্রতিনিধি শাহ আলম মোল্লা, খন্দকার রাসেল, উপজেলার প্রতিনিধি খন্দকার মোঃ সাদি, জাহাঙ্গীর, খায়রুল কবির সাইমন, জালাল উদ্দিন, আশরাফুল, লালপুর ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের আহবায়ক শামীম চৌধুরী, সদস্য সচিব স্বপন প্রমুখ।

শরীফপুর ইউনিয়ন সন্তান কমান্ডের সম্মেলনে এডঃ শাহিনুর ইসলামকে আহবায়ক ও মোঃ সালেহ আহম্মেদকে সদস্য সচিব করে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি ঘোষণা করা হয়। এদিকে তারুয়া ইউনিয়ন সন্তান কমান্ডের সম্মেলনে মোঃ মামুন সাদিকে আহবায়ক ও মোঃ ইকরাম মুক্তিকে সদস্য সচিব করে ৯ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়।

সম্মেলনদ্বয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব হারুন অর রশিদ বলেন, আমাদের মুক্তিযোদ্ধাদের বিভিন্ন সুযোগ ও চাকুরী ক্ষেত্রে আমাদের সন্তানদের জন্য বরাদ্ধকৃত কৌটা বাতিলের জন্য একটি কুচক্রি মহল উঠে পড়ে লেগেছে। এদের বিরুদ্ধে আমাদেরকে সোচ্চার হতে হবে। তাই মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে এসব কুচক্রি মহলের বিরুদ্ধে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা মানবতার মা। তাঁর বলিষ্ঠ নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, এগিয়ে যাবে। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের দুঃখ বুঝেন। তাই তিনি এসব কুচক্রি মহলের কথায় কান দিবেন না এটা আমাদের বিশ্বাস। এই কমিটি গঠনের মাধ্যমে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের ঐক্যবদ্ধ করায় আমাদের একমাত্র লক্ষ। মুক্তিযোদ্ধা এবং তাদের সন্তানদের এক্যবদ্ধ হয়ে এসব কুচক্রি মহলের বিরুদ্ধে রুখে দাড়াতে হবে।

সম্মেলনে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ জেলা সন্তান কমান্ডের সদস্য সচিব ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর মোঃ আহসানউল্লাহ্ হাসান এসব কুচক্রি মহলের বিরুদ্ধে এবং কৌটা বহাল রাখার দাবীতে আগামী ৫ মার্চ ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব চত্বরে মুক্তিযোদ্ধা ও তাদের সন্তানদের আয়োজনে এক মানববন্ধন কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হবে। এতে আপনারা স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণ করে কর্মসূচী সফল করুন।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares