Main Menu

নাসিরনগরের কলেজ ছাত্রীর আত্মহত্যার রহস্য প্রকাশ: অন্তরালে প্রেম

+100%-

 

মোঃ আব্দুল হান্নান,নাসিরনগর,ব্রাহ্মণবাড়িয়া : নাসিরনগরে কলেজ ছাত্রী আত্মহত্যার জট খুলতে শুরু করেছে। বখাটে প্রেমিকের উত্তক্তের কারণে আত্মহত্যা করেছে বলে ছাত্রীর পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে। ছাত্রীর পিতা নাসিরনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ বি এম সালেম ও মা সহকারী শিক্ষিকা শাহানা আক্তার সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে এ তথ্য জানায়। তারা জানান ঘটনার তারিখে নাসিরনগর সদরের সেলুন ব্যবসায়ী অমৃতলাল মালাকারের ছেলে দয়াল মালাকার(২০) দীনা ও তার মাকে নিয়ে অকথ্য মন্তব্য করে। রাকীবের সাথে প্রেমের সম্পর্ক না রাখলে দীনার ভীষণ ক্ষতি হবে বলে হুমকি দেয়  রাকীবের বন্ধু দয়াল মালাকার। ওই সময় দীনা কলেজ ক্যাম্পাসে ছিল। দয়ালের উদ্যক্তপূর্ণ আচরণের কারণে অসুস্থ হয়ে পড়ে দীনা। দীনার এ অবস্থা দেখে অধ্যক্ষ আলমগীর হোসেন দীনার বাবাকে খবর দিয়ে নিয়ে দীনাকে তার হাতে তুলে দেয়। পরদিন  দীনা কলেজ থেকে ফেরার পথে রাকীব ও তার বন্ধু দয়াল পূনরায় দীনাকে হুমকি দেয়। তাদের অব্যহত হুমকি সহ্য করতে না পেরে আত্মহত্যার পথ বেচে নেয় দীনা। তাৎক্ষনিত উপায়ন্ত না দেখে আধুনিক হাসপাতালের ৫ম তলার ছাদের উপর দৌড়ে ওঠে দীনা। হাসপাতালের ছাদ থেকে লাফ দিয়ে মাটিতে পরে যায়। গুরুতর আহত দীনাকে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। তার অবস্থার অবনতি দেখে কর্তব্যরত ডাক্তার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। ঢাকা মেডিকেলে ভর্তির পর বিকালে সেখানে মারা যায়। লাশের ময়না তদন্ত শেষে বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টায় নাসিরনগর ডিগ্রী মহাবিদ্যালয়ে ১ম জানাযা শেষে তার গ্রামের বাড়ি শ্রীঘর ২য় জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মামলা হয়নি তবে  প্রস্তুতি চলছে বলে পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares