Main Menu

নাসিরনগরে বখাটের অত্যাচার কেড়ে নিল কলেজ ছাত্রীর প্রাণ।

+100%-

নাসিরনগর,ব্রাহ্মণবাড়িয়াঃ সিনেমার নাটক নয়,বাস্তব ঘটনা। সিনেমার মত ৫ তলার উপর থেকে লাফ দিয়ে মাটিতে পরে আত্মহত্যা করেছে কলেজ ছাত্রী দীনা আক্তার(১৭)। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার সকাল ১০ ঘটিকায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নাসিরনগর উপজেলার বটতলায় আধুনিক হাসপাতালে। ঘটনার বিবরণে জানা গেছে নাসিরনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ বি এম সালেম ও সহকারী শিক্ষিকা শাহানা আক্তারের মেয়ে নাসিরনগর ডিগ্রী মহাবিদ্যালয়ের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী দীনা আক্তারের সাথে প্রতিবেশি নাছির চৌধুরীর ছেলে রাকীব চৌধুরীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল দীর্ঘদিন। দীনার মা বাবা বাধা দিলে দীনা প্রেম থেকে বিরত হয়ে যায়। কিছুদিন পূর্বে রাকীব তার বন্ধু সেলুন ব্যবসায়ী দয়াল দাসকে দিয়ে একটি চিঠি ও উপন্যাস পাঠায় বলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি সূত্র জানায়। দয়াল বই ও চিঠিটি দিয়ে আসার সময় দীনাকে হুমকি দিয়ে আসে। রাকীবের সাথে প্রেমের সম্পর্ক না রাখলে দীনার ভীষণ ক্ষতি হবে বলে হুমকি দিয়ে আসে। রবিবার সকালে দীনা প্রাইভেট পড়তে কলেজে গেলে, পেছনে লাগে রাকীব। দীনা রাকীবকে বাঁধা ও নিষেধ করলেও কিছুতেই মানতে নারাজ রাকীব। অবশেষে বখাটে রাকীবের উত্যক্ত থেকে রক্ষা পেতে আত্মহত্যার পথ বেচে নেয় দীনা। সে বন্ধু ও বান্ধবীদের হাসপাতালের নিচে দাঁড় করিয়ে ৫ তলা উঠে লাফ দিয়ে পরে যায় জমিনে। মারাত্মক আহত হয় দীনা।তাৎক্ষণিক তাকে নেওয়া হয় নাসিরনগর হাসপাতালে। দীনার অবস্থা আশংখাজনক দেখে কর্তব্যরত ডাক্তার থাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে প্রেরন করে। পরবর্তীতে দীনাকে প্রেরণ করা হয় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার পথে বেলা ৪ ঘটিকার সময় নরসিংদী নামক স্থানে মৃত্যুরকুলে ঢলে পড়ে দীনা। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন মামলা হয় নি।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares