Main Menu

নাসিরনগরে ভোটে আস্থা নেই,প্রার্থীতা প্রত্যাহার জাতীয় পার্টির

+100%-

মুরাদ মৃধা,নাসিরনগর সংবাদদাতাঃ  বর্তমান সরকারের আমলে কোন নির্বাচনেই জনগনের ভোটে আস্থা নেই। গত ১০ মার্চ ৭৮টি উপজেলায় প্রথম ধাপের নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপি হয়েছে বলে দাবী করেন জাতীয় পার্টির মনোনিত প্রার্থী শাহানুল করিম সেলিম।

আসন্ন ৫ম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চতুর্থ ধাপে অনুষ্ঠিতব্য নাসিরনগর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জাতীয় পার্টি(এরশাদ)মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী শাহানুল করিম সেলিম প্রার্থীতা প্রত্যাহারের জন্য আবেদন করেছেন।

বুধবার (১৩ মার্চ) মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের পর তিনি জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা বরাবর লিখিত আবেদন করেন। তার আবেদন মঞ্জুর হলে চেয়ারম্যান পদে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী রাফি উদ্দিন আহমেদ ও স্বতন্ত্র প্রার্থী এটিএম মনিরুজ্জামান সরকারকে নিয়ে নির্বাচনে প্রতিদন্ধীতা করবেন।

নাসিরনগর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্নিং অফিসার মোঃ আবুল কালাম আজাদ জাতীয় পার্টির মনোনয়ন প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি জানান,চেয়ারম্যান পদে তিন জন,ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিন জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে দুজন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেছিলেন এবং যাচাই-বাছাইয়ে সকলের মনোনয়নপত্র বৈধ হয়েছিল। জাতীয় পার্টির প্রার্থী চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন প্রত্যাহার করায় নির্বাচনের মাঠে লড়বেন দুজন প্রার্থী।

জানা গেছে, ৪ মার্চ জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয় হতে মনোনয়ন প্রাপ্ত হয়ে উপজেলা সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তার নিকট মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। ১৩ মার্চ প্রার্থীতা প্রত্যাহর করার আবেদন করেন জেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কাছে।
কেন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করছেন জানতে চাইলে শাহানুল করিম সেলিম বলেন,বর্তমান সরকারের আমলে নির্বাচনের উপর জনগণের কোন আস্থা নেই। আমার উপজেলা জাতীয় পার্টির কর্মী সমর্থকদের রায়ের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে আমি আমার প্রার্থীতা প্রত্যাহার করলাম। তিনি মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের লিখিত আবদেনপত্রে উল্লেখ করেন,আমার জ্ঞান ও বিশ্বাস মতে কারো দ্বারা প্ররোচিত না হয়ে মনোনয়নপত্রটি প্রত্যার করলাম।

সহকারী উপজেলা রির্টানিং কর্মকর্তার তথ্য মতে, চেয়ারম্যান পদে দুজন,ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিন জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিন জন প্রার্থী রয়েছেন। সহকারী রির্টানিং কর্মকর্তা আরও জানান, বৃহস্পতিবার সকল প্রার্থীদের মধ্যে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। জাতীয় সংসদের ২৪০নং ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ সংসদীয় আসনে মোট ভোটার সংখ্যা ২লক্ষ ১৩হাজার ৯শ ৭০জন। চতুর্থ ধাপে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ৩১ মার্চ।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares