Main Menu

নাসিরনগরে ইউপি চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালনে বাধা নেই

+100%-

এম.ডি.মুরাদ মৃধা,  নাসিরনগর হতেঃ  ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে হিন্দু সম্প্রদায়ের মন্দির ও বাড়িঘরে হামলার ঘটনায় গ্রেপ্তার অন্যতম প্রধান সন্দেহভাজন হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দেওয়ান আতিকুর রহমান আঁখিকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

পরে ১৫ জানুয়ারী ৩৮ নং স্মারকে ১২ নং হরিপুর ইউনিয়নের দেওয়ান আতিকুর রহমান আখিকে সাময়িক ভাবে বরখাস্তের আদেশকে চ্যালেঞ্জ করে সাময়িক বরখাস্তকৃত চেয়ারম্যান হাইকোর্ট বিভাগে রীট পিটিশন নং ৩১২৫/২০১৭ দায়ের করেন।

গত ২৮ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট কতৃর্ক প্রদত্ত আদেশ মোতাবেক ইউনিয়ন পরিষদ এর সাময়িকভাবে বরখাস্তকৃত চেয়ারম্যান দেওয়ান আতিকুর রহমান আখিকে স্বীয় পদে দায়িত্ব পালন করতে অনুমতি প্রদান করা হয়।

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো. মাহাবুবুর রহমান স্বাক্ষরিত এক আদেশে এ সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়। নাসিরনগরে ইউনিয়ন পরিষদের সাময়িক বরখাস্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালনে আর বাধা নেই এ মর্মে হাইকোর্ট আদেশ দিয়েছেন।

গত রোববার ২৭ মে নাসিরনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দেওয়ান আতিকুর রহমান আখিকে দায়িত্ব পালনের জন্য হাইকোর্টের যাবতীয় কাগজপত্রসহ আবেদন জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে জমা দিয়েছেন। পাশাপাশি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছেও আবেদনের অনুলিপি জমা দিয়েছেন।

এ ব্যপারে দেওয়ান আতিকুর রহমান আখি বলেন, সত্যের জয় হয়েছে। আমার এলাকার জনগনকে আমি ধন্যবাদ দিচ্ছি। এ বিজয় হরিপুরবাসীর।

নাসিরনগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিষয়টি নিশ্চত করেন।

উল্লেখ্য,গত ৩০ অক্টোবর রাতে নাসিরনগরের রসরাজ দাস নামের এক ব্যক্তির ফেসবুক থেকে ধর্মীয় অবমাননাকর পোস্ট নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর উপজেলা সদরে হিন্দু বসতি ও মন্দিরে হামলার ঘটনা ঘটে। নাসিরনগর সদর থেকে ১৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পূর্বে হরিণবেড়ে রসরাজদের বাড়িও ভাঙচুর করা হয়। এরপর আরও চার দফায় হিন্দুদের বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ করা হয়। এসব ঘটনায় আটটি মামলা হয়েছে। এসব মামলায় আতিকুরসহ ১০৫ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares