Main Menu

সরাইলে সরাইলে মাদ্রাসা ছাত্রীর পায়ের রগ কর্তন: বিচার চেয়ে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ

+100%-


মোহাম্মদ মাসুদ, সরাইল ॥ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলার মাদ্রাসা ছাত্রী রায়হানা আক্তার নুজরাত এর দুই পায়ের রগ কেটে দেয়ার ঘটনায় জড়িত তার সাবেক স্বামীসহ সকল আসামিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চেয়ে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছেন স্থানীয় এলাকাবাসী। রবিবার দুপুর সাড়ে ১২টায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলার ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের শাহবাজপুর দ্বিতীয় গেইটে এই কর্মসূচিত পালিত হয়।
গত ১৩ মার্চ সকালে মাদারাসায় যাওয়ার পথে শাহ্বাজপুর গ্রামের ইসমাইল মিয়ার মেয়ে রায়হানা আক্তার নুজরাত তার সাবেক স্বামী সরাইল উপজেলার শাহ্বাজপুর গ্রামের মৃত মহব্বত আলীর ছেলে কামরুল মিয়া উপর্যপুরী ছুরিকাঘাত করে তার দুই পায়ের রগ কেটে দেয়। এ ঘটনায় ছাত্রী রায়হানা আক্তার নুজরাত এর মা হাজেরা খাতুন ওইদিন রাতেই সরাইল থানায় সাবেক স্বামী কামরুল মিয়াসহ তিনজনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন।
মানববন্ধন চলাকালে কয়েকশ নারী পুরুষ ও মাদ্রাসা ছাত্রী রায়হানা আক্তার নুজরাত এর মাদ্রাসার শিক্ষক শিক্ষার্থীরা মহাসড়কের দুই পাশে দাঁড়িয়ে মামলার মূল আসামি কামরুল মিয়ার ফাঁসি চেয়ে স্লোগান দেন।
স্থানীয় হাবলীপাড়া মহিলা মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা মুফতি শফিউল্লাহ্’র সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, মাদরাসা ছাত্রী রায়হানা আক্তার নুজরাতে বাবা মো. ইসমাইল মিয়া, দাদা শওকত আলী, মাওলানা আবদুর রহমান কাসেমী প্রমুখ।
বক্তারা এ হামলার ঘটনায় নিন্দা জানিয়ে বলেন, কামরুলের হামলার শিকার মাদ্রাসা ছাত্রী রায়হানা আক্তার নুজরাত এখন ঢাকায় মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে। মামলার পাঁচদিন পেরিয়ে গেলেও এখনো পর্যন্ত পুলিশ কাউকে গ্রেফতার না করাটা রহস্যজনক। কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সরাইল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জানান মামলার তদন্ত কাজে অগ্রগতি আছে। খুব দ্রুত আসামিদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares