Main Menu

সরাইলে ডাকাতের হামলায় সংবাদিক আহত। দুই ডাকাত গ্রেপ্তার

+100%-

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা প্রবীণ সাংবাদিক যতীন্ত্র মোহন চৌধুরী (৬৬) ডাকাতদের হামলায় গুরুতর আহত হওয়ার ঘটনায় পুলিশ দুই ডাকাতকে প্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো সরাইল উপজেলা সদরের সৈয়দটুলা গ্রামের ইব্রহিম মিয়া (২৩) ও উপজেলার নোয়াগাঁও ইউনিয়নের ইসলামাবাদ গ্রামের পাভেজ তালুকদার (২২)।
পুলিশ গত মঙ্গলবার দিবাগত রাতে অভিযান চালিয়ে উপজেলার নোয়াগাঁও ইউনিয়নের বারিউড়া এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করেছে। তারা যতীন্ত্র মোহন চৌধুরীর দায়ের করা মামলার সন্দেহ ভাজন আসামি।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, যতীন্ত্র মোহন চৌধুরী জেলা থেকে প্রকাশি দৈনিক সরোদ পত্রিকায় সরাইল উপজেলা প্রতিনিধি হিসিবে কর্মরত রয়েছেন। তিনি একজর যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা এবং সরাইল উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সহকারী সাংগঠনিক কমান্ডার ও বাংলাদেশ হিন্দু-বোদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শাখার সদস্য। এ ছাড়া সরাইল প্রেস ক্লাবের কার্য নির্বাহী সদস্য। তিনি পত্রিকার পেশাগত দায়িত্ব পালন শেষে গত শনিবার (১০-০৬-১৭) সন্ধ্যা সোয়া ৭টায় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের সরাইল বিশ্বরোড মোড় থেকে সিএনজি চালিত একটি অটোরিকশা যোগে উপজেলার শাহবাজপুরে গ্রামের বাড়িতে যাচ্ছিলেন। ওই অটোরিকশায় পূর্ব থেকেই চালকসহ ৪ ডাকাত বসা ছিল।
এক কিলোমিটার পথ অতিক্রম করার পর মহাসড়কের সরাইল উপজেলা সদরের কুট্টাপাড়া এলাকায় চালকের সহায়তায় দুই ডাকাত তার চোখ বেঁধে ফেলে। এসময় ডাকাতদল তাকে একাধিক ছুরিকাঘাত ও মারধর করে একটি ক্যামেরাসহ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুটে নেয়। পরে ডাকাতদল তাঁকে চলন্ত অটোরিকশা থেকে লাথি মেরে মেলে দেয়। এ ঘটনায় যতীন্ত্র মোহন চৌধুরী বাদী হয়ে গতকাল সরাইল থানায় অজ্ঞাতনামা চার জনের বিরুদ্ধে একটি ডাকাতি মামলা দায়ের করেন। সরাইল থানার ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রুপক কুমার সাহা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে ওই ঘটনার সঙ্গে তারা জড়িত রয়েছে। গতকাল দুপুরে তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।সূত্র: মানব জমিন






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares