Main Menu

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রাক শ্রমিকদের হামলায় এএসপি আহত

+100%-

প্রতিবেদক : ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রাক শ্রমিকদের হামলায় এএসপি সার্কেল শফিকুর রহমান গুরুত্বর আহত হয়েছেন। গুরুত্ব আহত অবস্থায় তাকে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এক ট্রাক চালকের সহযোগিকে মারধরের জের ধরে শ্রমিকরা তাকে মারধর করে। শ্রমিক মারধরের প্রতিবাদে টায়ার আগুন দিয়ে আধঘণ্টা সড়ক অবরোধ করে রাখা হয়। শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষে পথচারীসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়েছে।

 

 

বুধবার রাত সাড়ে আটটার দিকে শহর বাইপাস সড়কের পূর্ব মেড্ডা সার গোডাউন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।  

স্থানীয় ট্রাক মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান জানান, শহরের মেড্ডা কুকিল টেক্সটাইল এলাকায় বুধবার সন্ধ্যায় পুলিশের একটি গাড়ি মেরামত করাতে আসে। এ গাড়িটি মেরামত শেষে ফেরার পথে একটি ট্রাক রাস্তার উপর ঘোড়ানোর চেষ্টা করলে পুলিশের ঐ গাড়িতে থাকা সদস্যদের সাথে বাকবিতন্ডা হয়। এক পর্যায়ে পুলিশ ঐ গাড়ির হেলপারকে বেদড়ক মারধোর করে। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে ট্রাক শ্রমিকরা তাৎণিকভাবে সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ সৃষ্টি করে।

খবর পেয়ে দাঙ্গা পুলিশ গিয়ে অবরোধ তোলার চেষ্টা করলে শ্রমিকদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ বাঁধে। এসময় সদর মডেল থানার এএসপি শফিকুল ইসলাম শ্রমিকদের ছোড়া ঢিল ও লাঠির আঘাতে মাথা ও বুকে আঘাত পান। সংঘর্ষের সময় পথচারীসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়।

 

 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. আবু সাঈদ জানান, হাসপাতালে আনার পর এএসপির মাথায় সেলাই করা হয়েছে। তার বুকের ডান পাশে ইটের আঘাত রয়েছে। তবে তিনি বর্তমানে আশঙ্কামুক্ত।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান জানান, এটি একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা। ওই সড়কে যানজট লাগায় সিএনজিচালিত অটোরিকশা এবং টেম্পু চালকের মধ্যে বাকবিতন্ডা হয়। এ ঘটনাকে শ্রমিকরা ভুল বুঝে সেখানে থাকা পুলিশের ওপর আক্রমণ করে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares