Main Menu

জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৩তম শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে

“লুৎফুল হাই সাচ্চু স্মৃতি পরিষদের” আয়োজনে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

+100%-

হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৩তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০১৮ উপলক্ষে প্রয়াত জননেতা, সাবেক সাংসদ “লুৎফুল হাই সাচ্চু স্মৃতি পরিষদের” উদ্যোগে এক আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল আজ বুধবার দুপুরে এডঃ লুৎফুল হাই সাচ্চুর মৌলভীপাড়াস্থ বাসভবনে অনুষ্ঠিত হয়।

স্মৃতি পরিষদের আহবায়ক, মুক্তিযুদ্ধকালীন ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানা গেরিলা কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা আমানুল হক সেন্টুর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব শফিকুল আলম এম.এস.সি। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুক্তিযোদ্ধা মন্ত্রণালয়ের সাবেক সচিব বীরমুক্তিযোদ্ধা মোঃ মিজানুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি, সাবেক পৌর মেয়র মোঃ হেলাল উদ্দিন, মরহুম সাংসদের ভগ্নীপতি প্রকৌশলী এ.কে.এম সামছুল আলম, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ এর সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব মোঃ হারুন অর রশিদ।

সভায় অন্যনার মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি মোঃ কাউছার আহমেদ, জেলা যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এড. শাহনুর ইসলাম, নাটাই উত্তর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান কাজী মোবারক হোসেন, মরহুম নেতার ছোট ভাই মনোয়ারুল হাই (মামুন)।

সভায় বক্তগণ বলেন, ১৫ আগস্ট আমাদের জাতীয় জীবনে এক গভীর শোকের দিন। এ দিন আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রামের মহানায়ক ও স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি, জাতির পিতা, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে নির্মম ভাবে হত্যা করা হয়। ইতিহাসের বর্বরচিত এ হত্যাকান্ডে শুধু বাঙ্গালী জাতিয় নয় সারা বিশ্ববিবেক হতবাক ও নিস্তব্ধ হয়ে গিয়েছিলো। বঙ্গবন্ধুকে হত্যার দীর্ঘ ২৫ বছর আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর তারই সুযোগ্য কন্যার হাত ধরে বাংলাদেশ এখন বঙ্গবন্ধুর আর্দশে, মুক্তিযুদ্ধের চেতনায়, গণতন্ত্র ও উন্নয়নের পথে এগিয়ে চলছে। আসুন আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ ভাবে জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের হাত কে শক্তিশালী করি।

দোয়া মাহফিলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানসহ ও তাঁর পরিবারের সকল শহীদ সদস্য, মুক্তিযুদ্ধের সকল শহীদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে মহান আল্লাহ তায়ালা দরবারে মোনাজাত করা হয়। অনুষ্ঠানে বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষের সমাগম হয়।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares