Main Menu

নির্ধারিত স্থানে পশু কোরবানী করলে পরিচ্ছনতা কার্যক্রম তরান্বিত হয় — জেলা প্রশাসক রেজওয়ানুর রহমান

+100%-

পবিত্র ঈদুল আযহায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার কোরবানীর পশু জবেহ্ এর নির্ধারিত স্থান ৯নং ওয়ার্ডের পুনিয়াউট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে পশু কোরবানী করলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলা প্রশাসক রেজওয়ানুর রহমান। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভুমি) মঈন উদ্দিন, ৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মুরাদ খান, জেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি হাজী মোঃ হেলাল উদ্দিন, স্পেশাল পিপি এডঃ তাজুল ইসলাম, ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেড ক্রিসেন্ট ইউনিটের সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল ওয়াহিদ খান লাভলু, ব্রাহ্মণবাড়িয়া পিটি ইন্সটিউটের সাবেক সুপারিনটেন্ট জেসমিন খানম, জেলা আইনজীবি সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক এডঃ তরিকুল ইসলাম খান রুমা, বিশিষ্ট সমাজসেবক আনোয়ার খান, মোঃ ইলিয়াছ খান পিন্টু, মোঃ তানজিল খান, মোঃ আলাউদ্দিন খান প্রমুখ।

পশু কোরবানী শেষে জেলা প্রশাসক উপস্থিত সকলের উদ্দেশ্যে বলেন, সরকার সারা দেশে নির্ধারিত স্থানে পশু কোরবানীর জন্য নির্দেশনা দিয়েছেন। তারই আলোকে আমরা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার প্রত্যেক উপজেলা ও পৌরসভায় নির্ধারিতভাবে স্থান নির্ধারন করেছি। এ বছর অনেকেই নির্ধারিত স্থানে এসে কোরবানীর পশু জবেহ করেছেন। আমরা আশা করছি আগামীতে শতভাগ আমাদের কর্মসূচী বাস্তবায়িত করতে পারবো। তিনি এ সময় আরো বলেন, নির্ধারিত স্থানে পশু কোরবানীর কারণে পরিচ্ছনতা কার্যক্রম অতিদ্রুত সময়ের মধ্যে সম্পন্ন করা যায়। তাই এই কার্যক্রমকে আরো তরান্বিত করতে হবে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares