Main Menu

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বর্ণাঢ্য আয়োজনে তিনদিনের অদ্বৈতমেলা শুরু

আমাদের সন্তানদের আদর্শ হিসাবে গ্রহণ করতেও অদ্বৈত মল্লবর্মণকে স্মরণ করবো: র. আ. ম. উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি

+100%-

odittoডেস্ক ২৪:: ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বর্ণাঢ্য আয়োজনে শুরু হয়েছে অদ্বৈতমেলা ২০১৭। গত শনিবার সন্ধ্যার পর শহরের শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত ভাষা চত্বরে তিনদিন ব্যাপী এ মেলার উদ্বোধন করেন র. আ. ম. উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি। বাংলা ভাষা ও সাহিত্যের অমর কথাশিল্পি, তিতাস জনপদের কৃতি সন্তান অদ্বৈত মল্লবর্মণের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে তিতাস আবৃত্তি সংগঠন এ মেলার আয়োজন করেছে।

সংগঠনের উপদেষ্টা এড. তাসলিমা সুলতানা খানম নিশাতের সভাপতিত্বে ও সহকারী পরিচালক বাছির দুলালের পরিচালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন পৌর মেয়র মিসেস নায়ার কবীর, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আল মামুন সরকার, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য বেলায়েত হোসেন, প্রেসক্লাব সভাপতি খ. আ. ম. রশিদুল ইসলাম। মেলা মঞ্চে আবৃত্তি পরিবেশন করেন বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য বেলায়েত হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক শরীফ আহমেদ বিল্টু, কুমিল্লা কারুকন্ঠের আবু নাসের মানিক, চট্টগ্রামের বোধনের প্রনব চৌধুরী, তারুন্যের উচ্ছাসের মোজাহিদুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে লোকনৃত্য পরিবেশন করেন নৃত্যশিল্পি জে আমিনের নির্দেশনায় সূর্যমুখী কিন্ডার গার্টের স্কুলের শিক্ষার্থীরা।অনুষ্ঠানে পৌর মেয়র মিসেস নায়ার গোকর্ণঘাটে একটি রাস্তার নামকরণ অদ্বৈত মল্লবর্মণের নামে করার ঘোষনা দেন।

প্রধান অতিথি উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী গোকর্ণঘাট মালুপাড়ায় একটি শিক্ষা আন্দোলন গড়ে তোলার উদ্যোগ নেয়াসহ লঞ্চঘাটের নাম অদ্বৈত মল্লবর্মণের নামে নামকরণের ঘোষনা দেন। এছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শহরের একটি স্থাপনার নামও অদ্বৈত’র নামে করার ঘোষনা দেন তিনি। এসময় তিনি বলেন,অদ্বৈত মল্লবর্মণ আমাদের জন্য যে অহংবোধ রেখে গেছেন তার সাথে নিজেদের সম্পৃক্ত করতে-নিজেদের সমৃদ্ধ করতেই তাকে স্মরণ করবো। তাকে আমাদের সন্তানদের আদর্শ হিসাবে গ্রহণ করতেও অদ্বৈত মল্লবর্মণকে স্মরণ করবো। তাঁর তিতাস একটি নদীর নাম একটি উপন্যাস শুধুমাত্র নয় একটি জনপদের পরিচয়ও বটে। এ উপন্যাসের মাধ্যমে তিনি ব্রাহ্মণবাড়িয়াকে আন্তর্জাতিক পরিচিতি দিয়েছেন। তাঁর জীবন সংগ্রাম জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম ও সুর সম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খার সাথেই তুল্য। তাঁর সৃষ্টিতে গণমানুষের কথা শিল্পিত উপায়ে রূপায়িত হয়েছে। তাঁর মানবিক মূল্যবোধ আমাদের অনুকরণীয় আদর্শ। তাঁর উপন্যাসে আমাদের সেইসময়কার জনপদের অসাম্প্রদায়িক চিত্র আমাদের নতুন প্রেরণা দেয়।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares