Main Menu

আন্তর্জাতিক নারী দিবস ২০১৮ উপলক্ষে সনাক এর উদ্যোগে মুক্ত আলোচনা সভা

+100%-

 “টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট, সুশাসন ও নারী” টিআইবির এই প্রতিপাদ্য বিষয়কে সামনে নিয়ে তরুণদের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে ৮ মার্চ ২০১৮ সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক), টিআইবি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উদ্যোগে সনাক, স্বজন, ইয়েস ও ইয়েস ফ্রেন্ডস সদস্যদের অংশগ্রহণে মুক্ত আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। বিকাল ৪ টায় সনাক কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত মুক্ত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন সনাক সভাপতি জেসমিন খানম।

ইয়েস দলনেতা মো: তারিকুল ইসলামের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন সনাক এর জেন্ডার বিষয়ক উপ-কমিটির আহ্বায়ক নন্দিতা গুহ। এছাড়া বক্তব্য রাখেন সনাক সদস্য জয়দুল হোসেন, সনাক সদস্য মোহাম্মদ আরজু, সনাক সদস্য আবদুন নূর, স্বজন সদস্য নেলি আক্তার ও স্বজন সমন্বয়ক ফজিলাতুন্নাহার প্রমুখ।

আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, নারী শিক্ষা, মাতৃস্বাস্থ্য, নারীর ক্ষমতায়ন, জেন্ডার সমতা প্রভৃতিতে বাংলাদেশের অগ্রগতি জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে প্রশংসিত হয়েছে কিন্তু সেটা প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল এবং সিদ্ধান্ত গ্রহণের ক্ষেত্রে নারীর কার্যকর ভূমিকা এখনও সীমিত। যতক্ষন পর্যন্ত নারী-পুরুষ সমমর্যাদায় শিক্ষিত, সচেতন ও আর্থিক ভাবে স্বচ্ছল করে ক্ষমতায়িত না করা যাবে ততক্ষণ পর্যন্ত মানবতার উন্নয়ন সম্ভব নয়। নারীর অর্থনৈতিক সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য নারীদের সু-শিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে, নিজের অধিকার সম্পর্কে জানতে হবে এবং নিজের অধিকার আদায় করে নিতে হবে। তাই নারীর ক্ষমতায়নে আমাদের সকলকে ইতিবাচক ভুমিকা পালন করতে হবে। সমাজ ও রাষ্ট্রীয় জীবনের সকল ক্ষেত্রে ন্যায়বিচার, নারী ও পুরুষের সমান মর্যাদা প্রতিষ্ঠায় আমাদের সকলকে মুখ্য ভূমিকা পালন করতে হবে। নারীদের সক্রিয়তাই পারে সমাজ থেকে নারী বৈষম্য দূর করতে। নারীদের চিন্তা চেতনায় পরিবর্তন আনতে হবে। উন্নয়ন কর্মকান্ডে নারীদের অংশগ্রহন করতে হবে, সেই সাথে নারীদের মতামত প্রকাশের স্বাধীনতা দিতে হবে, নারীদের সম্মান করতে হবে এবং নারী পুরুষ মিলে দেশ ও সমাজের উন্নয়নে এক সাথে কাজ করে যেতে হবে।সংবাদ বিজ্ঞপ্তি






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares