Main Menu

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর সভার প্রস্তাবিত বাজেট অনুষ্ঠানে মোকতাদির চৌধুরী এমপি

আগামী প্রজন্মের বাসযোগ্য একটি পরিকল্পিত শহর গড়ে তুলতে আমাদেরকে কাজ করতে হবে

+100%-

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অভাবনীয় উন্নয়নের রূপকার, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন বিষয়ক মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি র.আ.ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি বলেছেন, বিগত সময়ে তথাকথিত নগর পিতা আর নগর পিতার অনুসারীরা মিলে শহরের একমাত্র টাউন খালটি সৌন্দর্য্যবর্ধনের নামে সংকুচিত করে ফেলেছে। এছাড়াও প্রভাবশালীরা খালের কিছু কিছু অংশ দখল করে নিয়েছে। তিনি খালটি মেপে অবৈধ দখলমুক্ত করে খালটিকে পুরনো অবস্থায় ফিরিয়ে আনার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানান।
তিনি সোমবার সকালে স্থানীয় সুর সম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ পৌর মিলনায়তনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর সভার ২০১৯-২০২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন। পৌর মেয়র নায়ার কবিরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বাজেট অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মোকতাদির চৌধুরী এমপি পৌর মেয়র ও প্রকৌশলীদের উদ্দেশ্যে বলেন, দ্রুত পানি নিষ্কাষণের জন্য শহরের ড্রেনগুলোকে আরো গভীর করে নির্মাণ করতে হবে। নিয়মিত ড্রেনগুলোকে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করতে হবে।
তিনি বলেন, আগামী প্রজন্মের বাসযোগ্য একটি পরিকল্পিত শহর গড়ে তুলতে আমাদেরকে কাজ করতে হবে। তিনি কাজের গুনগত মান বজায় রেখে প্রতিটি উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়নের জন্য পৌর কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানান। তিনি শহরের আর কোন খাল বা পুকুর যেন ভরাট না হয় সেদিকে খেয়াল রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানান।
বাজেট অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন, স্থানীয় সরকার বিভাগ, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উপ-পরিচালক দুর-রে-শাওয়াজ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মুহম্মদ আলমগীর হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক পৌর চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের কোষাধ্যক্ষ ও দৈনিক দিনদর্পণ এর নির্বাহী সম্পাদক নজরুল ইসলাম শাহজাদার সঞ্চালনায় প্রস্তাবিত বাজেটের উপর বক্তব্য রাখেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া টেলিভিশন জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি মনজুরুল আলম, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এড. লোকমান হোসেন, মুক্তিযোদ্ধা আবু হোরায়রাহ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রির পরিচালক আলহাজ্ব মোঃ শাহ আলম।
পবিত্র কোরআন থেকে তেলওয়াত করেন পৌরসভা মসজিদের ইমাম হাফেজ মোঃ মুর্শেদ কামার, পবিত্র গীতা পাঠ করেন পৌরসভার সহকারী কর আদায় কারী ঝুলন চন্দ্র বিশ্বাস।
অনুষ্ঠানে পৌর মেয়র নায়ার কবির ২০১৯-২০২০ অর্থ বছরের জন্য ৪৮ কোটি ৪৯ লাখ ১১ হাজার টাকার প্রস্তাবিত বাজেট ঘোষনা করেন। এতে সম্ভাব্য ব্যয় ধরা হয়েছে ৪৭ কোটি ৯৭ লাখ টাকা এবং সমাপনী স্থিতি ৫২ লাখ ১১ হাজার টাকা।
বাজেটে সম্ভাব্য আয় ধরা হয়েছে পৌরকর, রেইট, লাইসেন্স ফি, হাটবাজার, পুকুর ও টার্মিনাল ইজারা, পৌর সম্পত্তির ভাড়া, বাণিজ্যিক মার্কেটের সেলামী, পৌর পানি সরবরাহ ইত্যাদি খাতে। সম্ভাব্য ব্যয় ধরা হয়েছে, জলবায়ু পরিবর্তন, হাট বাজার উন্নয়ন, ট্রাক টার্মিনাল নির্মাণ, শিশু পার্ক নির্মাণ, পৌর মিলনায়তন ও এবং গরুর বাজার সম্প্রসারণ খাতে, বাণিজিক মার্কেটের নিমার্ণ, সৌন্দর্যবর্ধন কাজে।
অনুষ্ঠানে পৌরসভার কর্মকর্তা, কাউন্সিলর, সাংবাদিক এবং সুশীল সমাজের প্রতিনিধিগন উপস্থিত ছিলেন।
পরে দুপুর দুইটায় পৌরসভার মাহবুবুল হুদা মিলনায়তনে বাজেট উপলক্ষে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেন পৌর মেয়র নায়ার কবির। মতবিনিময় সভায় মেয়র সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। মতবিনিময় সভায় চলতি অর্থ বছরে ইউজিপ-৪ প্রকল্পে অন্তর্ভূক্ত হলে প্রায় ১০০ কোটি টাকা বরাদ্দ পাওয়া যাবে বলে বাজেট আলোচনায় জানানো হয়।
অনুষ্ঠানে পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী নিকাশ চন্দ্র মিত্র, সচিব শামসুউদ্দিন, হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা মোঃ গোলাম কাউসার, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি খ.আ.ম রশিদুল ইসলামসহ জেলায় কর্মরত বিভিন্ন প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক ও অনলাইন গণমাধ্যমের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Shares